মঙ্গলবার, ১১ মে ২০২১, ০২:৫১ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
কুমিল্লায় ৩৮ দিন পর শিশু’র লাশ উদ্ধার লুটপাট-দুর্নীতি রুখতে মুক্তিযুদ্ধের পুনর্জাগরণের ডাক কুমিল্লার মুরাদনগরে স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে সাংস্কৃতিক ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত রাজশাহীর তানোরে আলুর জমিতে আছড়ে পড়ল প্রশিক্ষণ বিমান’ পাইলট আহত অপর প্রশিক্ষণার্থী অক্ষত ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের চলমান মাদক বিরোধী অভিযানে রাজধানীতে গ্রেফতার-৪২ বিজিবির চলমান মাদক বিরোধী অভিযানে গোদাগাড়ীতে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা-হেরোইন উদ্ধার যুবক আটক রংপুরে প্রথম ওমেন্স ড্রিমার ক্রিকেট একাডেমি টুর্নামেন্ট’র খেলা শুরু র‌্যাব-৫ এর অভিযানে বিদেশী পিস্তল’ ওয়ান শুটারগান, গুলি ও ম্যাগজিনসহ ০১ অস্ত্র ব্যবসায়ী গ্রেফতার মোহনপুরে পূজা মন্দিরের নিরাপত্তায় কাজ করছে সশস্ত্র আনসার সদস্যরা রংপুর মেট্রোপলিটন ডিবি পুলিশের এএস আই কর্তৃক নবম শ্রেণির ছাত্রী ধর্ষণ!

টাঙ্গাইলে ধর্ষিতা-ধর্ষকের বিয়ে!

সাইফুল ইসলাম সবুজ, টাঙ্গাইল থেকে :

টাঙ্গাইলের সখীপুরে ধর্ষণের অবশেষে ৬ লাখ টাকা দেনমোহরে ধর্ষিতাকে বিয়ে করলেন ধর্ষক জসিম উদ্দিন (২৫)। গত ২০ জুন ২০১৯ ইং বিয়ের প্রলোভনে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগ এনে উপজেলার পাথারপুর গ্রামের প্রবাসী আলম মিয়ার ছেলে প্রেমিক জসিম উদ্দিনের (২৫) সহ সাত জনের নামে ধর্ষণ মামলা করেন প্রেমিকা। এ ঘটনায় ওইদিন রাতেই জসিম উদ্দিনের নানা বৃদ্ধ দুদু মিয়াকে গ্রেফতার করে আদালতে পাঠায় পুলিশ। ২১ জুন রাতে ৬ লাখ টাকা দেনমোহরে ধর্ষিতাকে (প্রেমিকা) বিয়ে করে ঘর সংসার শুরু করে ধর্ষক (প্রেমিক) জসিম উদ্দিন। এরপর থেকেই মামলা তুলে নিতে সখীপুর থানার ওসি, মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও ওকিলের ধারে ধারে ঘুরছেন বাদী ওই তরুণী।

এ ব্যাপারে মুঠোফোনে মেয়েটি জানায়, মামলা নয় আমি জসিমকে বিয়ে করে ঘর সংসার করতে চেয়েছিলাম। জসিম ও তার পরিবার রাজী না হওয়ায় আমাকে মামলার আশ্রয় নিতে হয়। মামলার পর জসিম বিয়েতে রাজি হওয়ায় থানা পুলিশ,উভয় পরিবারে লোকজন এবং এলাকার গণ্যমাণ্য ব্যাক্তিবর্গের উপস্থিতিতে আমরা ৬ লাখ টাকা দেনমোহরে বিয়ে করি। এখন মামলা দ্রুত নিষ্পত্তির জন্য পুলিশ ও ওকিলের ধারে ধারে ঘুরছি। একই মুঠোফোনে জসিম উদ্দিনও বিয়ে করার কথা স্বীকার করে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আজগর আলী জানান- উভয়পক্ষের লোকজন ও মাতাব্বরদের উপস্থিতিতে ওই বিয়ের রেজিস্ট্রি ও মৌলভী দ্বারা বিয়ে পড়ানু হয়। বর্তমানে মেয়েটি জসিমের বাড়িতে আছে এবং ঘর সংসার করছে।

সখীপুর থানার ওসি (তদন্ত) এএইচএম লুৎফুল কবির বলেন- বিয়ে করার বিষয়টি আমিও শুনেছি। মেয়েটি মামলা নিষ্পত্তির ব্যাপারে থানায় আসলে আইনি প্রক্রিয়াই মামলা শেষ হবে বলে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত: সখীপুর উপজেলার পাথারপুর গ্রামের প্রবাসী আলম মিয়ার ছেলে জসিম উদ্দিন দুই বছর আগে চাকুরী নিয়ে মালদ্বীপ যান। ওই তরুণীর সঙ্গে প্রবাসী জসিম উদ্দিনের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম (ফেসবুকে) পরিচয় হয়। এরপর থেকে দুজনের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। গত ২৫ মে ছুটিতে জসীম উদ্দিন মালদ্বীপ থেকে দেশে ফিরেই ওই প্রেমিকাকে বিয়ের প্রতিশ্রæতি দিয়ে প্রেমিক জসিম উদ্দিন একাধিকবার ধর্ষণ করে। এক পর্যায়ে বিয়ের আয়োজন করার কথা বলে জসিম উদ্দিন বাড়ি চলে আসে এবং মেয়েটির সঙ্গে সকল যোগাযোগ বন্ধ করে দেয়। এ ঘটনায় গত ২০ জুন রাতে ওই প্রেমিকা সখীপুর থানায় এসে প্রেমিক জসিমসহ ৭ জনের নামে ধর্ষণ মামলা করেন।

সাইবার ‍নিউজ একাত্তর/ ২৮শে জুন, ২০১৯ ইং/হাফিজুল

এই পোস্টটি আপনার সামাজিক মিডিয়াতে ভাগ করুন

খন্দকার ভবন তানোর থানার মোড় প্রাইমারী স্কুল সংলগ্ন তানোর, রাজশাহী থেকে প্রকাশিত। মোবাইল: ০১৭১৫-২৯৭৫২৪, ০১৭১৬-৮৪৪৪৬৫, ০১৯২০-৪৪০১১২ E-mail: cbnews71@gmail.com Web: www.cybernews71.com Facebook: www.facebook.com/cbnews71 www.twitter.com/CyberNews71 Youtube: //www.youtube.com/cbnews71

© কপিরাইট : খন্দকার মিডিয়া গ্রুপ

 বাল্যবিবাহ রোধ করুন, মাদক মুক্ত সমাজ গড়ুন।

ব্রেকিং নিউজ :